শাফাত ও সাকিফের পর রিমান্ডে নাঈম

0
49

রাজধানীর বনানীতে বিশ্ববিদ্যালয়ের দুই ছাত্রী ধর্ষণ মামলার অন্যতম আসামি আবদুল হালিম ওরফে নাঈম আশরাফকে সাত দিনের রিমান্ডে নেওয়ার অনুমতি দিয়েছেন আদালত।আজ বৃহস্পতিবার ঢাকার মহানগর হাকিম এস এম মাসুদ জামান এ আদেশ দেন।
এর আগে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে নাঈম আশরাফ দোষ স্বীকার করেছেন। আরও তথ্যের জন্য পুলিশের পক্ষ থেকে তাঁকে ১০ দিনের রিমান্ডে নেওয়ার আবেদন করলে আদালত সাত দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।
আপন জুয়েলার্সের অন্যতম মালিক দিলদার আহমেদের ছেলে শাফাত আহমেদ রাজধানীর বনানীতে বিশ্ববিদ্যালয়ের দুই ছাত্রী ধর্ষণ মামলার প্রধান আসামি। গত বৃহস্পতিবার তাঁকে ও তাঁর বন্ধু রেগনাম গ্রুপের কর্ণধার মোহাম্মদ হোসেন জনির ছেলে সাদমান সাকিফকে সিলেট থেকে গ্রেপ্তারের পর রিমান্ডে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করছে পুলিশ। আজ শাফাত ও সাকিফ আদালতে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন। পরে তাঁদের কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন আদালত।
গতকাল বুধবার রাতে মুন্সিগঞ্জের লৌহজং থেকে গ্রেপ্তার করা হয় নাঈম আশরাফকে। এ নিয়ে বনানী থানায় ধর্ষণ মামলার এজাহারভুক্ত পাঁচ আসামির সবাই গ্রেপ্তার হলেন। পুলিশের আরেকটি সূত্র বলেছে, ছাত্রী ধর্ষণের মামলার প্রধান অভিযুক্ত শাফাত আহমেদ জিজ্ঞাসাবাদে ধর্ষণের কথা স্বীকার করেছেন।

গত ২৮ মার্চ রেইনট্রি হোটেলে বিশ্ববিদ্যালয়ের দুই ছাত্রী ধর্ষণের শিকার হয়েছেন বলে ৬ মে বনানী থানায় মামলা হয়। আদালতে দেওয়া জবানবন্দিতে দুই ছাত্রী জানান, ২৮ মার্চ বনানীর রেইনট্রি হোটেলে জন্মদিনের অনুষ্ঠানে দাওয়াত দিয়ে তাঁদের নেওয়া হয়। সেখানে ধর্ষণের শিকার হন তাঁরা।

Comments

comments

SHARE