টাইগারদের শততম টেস্টে জয়ের হাতছানি।

0
72

শততম টেস্টকে জয় দিয়ে স্মরণীয় করে রাখার প্রত্যয় নিয়েই সিরিজের দ্বিতীয় টেস্টে শ্রীলঙ্কার মুখোমুখি হয়েছে টাইগার দল। প্রথম ইনিংসে এগিয়ে থাকার পর দ্বিতীয় ইনিংসেও স্বাগতিকদের চাপে ফেলে চতুর্থ দিন শেষে জয়ের সুবাসই পাচ্ছে মুশফিক বাহিনী। দ্বিতীয় দফায় ব্যাট করতে নেমে লঙ্কানরা ২৬৮ রানেই হারিয়েছে ৮ উইকেট। দিন শেষে ১৩৯ রানের লিড নিয়েছেন স্বাগতিকরা; দুই উইকেট হাতে রেখে। কলম্বোর পি সারা ওভালে টেস্টের পঞ্চম ও শেষদিনে জয়ের স্বপ্ন নিয়েই মাঠে নামবেন টাইগাররা।
জয় নাগালে থাকা বাংলাদেশের সামনে বাধা হয়ে দাঁড়িয়েছেন দিলরুয়ান পেরেরা ও সুরঙ্গা লাকমাল। দুইজনের অবিচ্ছিন্ন অষ্টম উইকেট জুটিতে এসেছে ৩০ রান। টেলএন্ডারে ব্যাট হাতে প্রতিরোধের নেতৃত্ব দেয়া পেরেরা ১২৬ বলে করেছেন ২৬* রান। অপর প্রান্তে ১৭ বলে ১৬ রান করে দলের রানের চাকাটা সচল রেখেছেন লাকমাল। পঞ্চম দিনের শুরুতেই এ দুই ব্যাটসম্যানকে ফেরাতে না পারলে জয়ের স্বপ্ন ফিকে হয়ে আসবে সফরকারীদের। টাইগার ব্যাটসম্যানদের সামনে তখন অপেক্ষা করবে বড় লক্ষ্য। 
বাংলাদেশের চেয়ে ১২৯ রানে পিছিয়ে থেকে দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাট করতে নেমে ৫৭ রানের ওপেনিং জুটিতে দারুণ শুরু করেছিলেন লঙ্কানরা। মেন্ডিসকে নিয়ে করুণারতেœর দ্বিতীয় উইকেটে ৮৬ রানের জুটিতে বড় স্কোরেরই স্বপ্ন দেখছিল স্বাগতিক দল। আগের দিনের বিনা উইকেটে ৫৪ রান নিয়ে খেলতে নেমে গতকাল মধ্যাহ্ন ভোজের আগ পর্যন্ত শ্রীলঙ্কার সংগ্রহ ছিল এক উইকেটে ১৩৭ রান। কিন্তু দ্বিতীয় সেশনে মোস্তাফিজুর রহমান ও সাকিব আল হাসানের বোলিং নৈপুণ্যে ঘুরে দাঁড়ান সফরকারীরা। দলীয় ১৪৩ রানে কুশল মেন্ডিসকে ফিরিয়ে বাংলাদেশকে ব্রেক থ্রু এনে দেন মোস্তাফিজ। ৯১ বলে ৩৬ রান করে উইকেটের পেছনে ক্যাচ দিয়ে বিদায় নেন মেন্ডিস। কাটার মাস্টারের বোলিং তোপের মুখে ক্রিজে এসে টিকতে পারেননি প্রথম ইনিংসে সেঞ্চুরি করা দিনেশ চান্দিমালও। ব্যক্তিগত ৫ রানের মাথায় মোস্তাফিজের দ্বিতীয় শিকারে পরিণত হন এ উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান। এরপর সাকিবের উইকেট উৎসবের শুরু।
আসেলা গুনারতেœকে দুই অঙ্কের রানে পৌঁছানোর আগেই (৭) আউট করে ম্যাচ নিজেদের দিকে ফিরিয়ে আনেন সাকিব। দলীয় ১৭৭ রানে পঞ্চম উইকেট হারান লঙ্কানরা। ধনাঞ্জয়া ডি সিলভাকে শূন্য রানেই বিদায় করে বাংলাদেশের জয়ের স্বপ্ন জাগিয়ে তোলেন মোস্তাফিজ। দলীয় ১৯০ রানে সাকিবের দ্বিতীয় শিকারে পরিণত হয়ে সাজঘরে ফেরেন উইকেটরক্ষক নিরোশান ডিকবেলা (৫)। এক প্রান্ত আগলে রেখে ছোট ছোট জুটিতে স্বাগতিক ইনিংসকে এগিয়ে নিচ্ছিলেন দীর্ঘতম ফরম্যাটে ক্যারিয়ারের পঞ্চম শতক পাওয়া দিমুথ করুণারতেœ। টাইগার দলের গলার কাঁটা হয়ে দাঁড়ানো এ ওপেনারকে বিদায় করে চতুর্থ দিনেই শ্রীলঙ্কার ইনিংস গুঁড়িয়ে দেয়ার সম্ভাবনা জাগিয়েছিলেন সাকিব। বাঁহাতি এ স্পিনারের বলে   সৌম্য সরকারের তালুবন্দি হয়ে সাজঘরে ফেরেন করুণারতেœ। তার ১২৬ রানের ইনিংসে ছিল ১০ বাউন্ডারি ও এক ছয়ের মার। করুণারতেœর পর শেষ বিকালে আরেক বাঁহাতি স্পিনার তাইজুল ইসলামের বলে সাজঘরে ফেরেন রঙ্গনা হেরাথও। ৩২ বলে ৯ রান করে লেগ বিফোর হন লঙ্কান অধিনায়ক। কিন্তু করুণারতেœর পর বোলারদের ধৈর্যের পরীক্ষা নিচ্ছেন পেরেরা ও লাকমল। আলো স্বল্পতার কারণে কয়েক ওভার আগেই চতুর্থ দিনের খেলার অবসান ঘটানোর আগে ৮.৪ ওভার অবিচ্ছিন্ন থেকে শ্রীলঙ্কাকে কিছুটা আশা দেখাচ্ছেন এ দুই ব্যাটসম্যান। 
যদিও দিনের শেষটা হয়েছে সফরকারীদের সঙ্গে আম্পায়ার আলিম দারের নাটুকে ব্যবহারের মধ্য দিয়ে। লঙ্কান ইনিংসের শততম ওভারে বোলার মোসাদ্দেক হোসেন সৈকতের ক্যাচের আবেদনে মাথা নাড়িয়ে লাকমলকে আউটে শুরুতে সায় দিলেও পর মুহূর্তে আবার মাথা নাড়িয়ে জানিয়ে দেন নটআউটের কথা! বাংলাদেশ রিভিউ নিলেও সফল না হওয়ায় বেঁচে যান লাকমল। বাংলাদেশকে চালকের আসনে বসানোর দুই নায়ক কাটার মাস্টার মোস্তাফিজ ৫২ রানে তিনটি এবং সাকিব ৬১ রানে পেয়েছেন তিন উইকেট। একটি করে উইকেট নিয়েছেন মেহেদি হাসান মিরাজ ও তাইজুল ইসলাম।

Comments

comments

SHARE